বোলিং নৈপুণ্যে টাইগারদের জয়ের স্বপ্ন

প্রকাশিত: ১১:৫৭ পূর্বাহ্ণ, ফেব্রুয়ারি ১৪, ২০২১

বোলিং নৈপুণ্যে টাইগারদের জয়ের স্বপ্ন

জুবায়ের আহমেদ:

মিরপুর টেস্টে ঘুরের দাঁড়ানোর প্রত্যাশা নিয়ে খেলতে নামে বাংলাদেশ। কিন্তু উইন্ডিজের ব্যাটসম্যানরা ৪০৯ রানের বড় সংগ্রহ গড়ার বিপরীতে বাংলাদেশ মাত্র ২৯৬ রানে অলআউট হলে বড় লিড পায় উইন্ডিজ। তবে বোলারদের নৈপুণ্যে ২য় ইনিংসে ব্যাট করতে নামা ক্যারিবিয়ানদের টুটি চেপে ধরে জয়ের স্বপ্ন দেখছে বাংলাদেশ। ৪র্থ দিনের প্রথম সেশন শেষে উইন্ডিজের সংগ্রহ ৬ উইকেট হারিয়ে ৯৮ রান। লিড ২১১।

 

এর আগে দুই ম্যাচ টেস্ট সিরিজে ১-০ ব্যবধানে এগিয়ে থেকে মিরপুরে সিরিজ জয়ের প্রত্যাশায় টস জিতে ব্যাটিং নেয় উইন্ডিজ। ওপেনার ব্রাফেটের ৪৭, নকরুমাহ বোনারের ৯০, জসুয়া ডি সিলবার ৯২ ও আলজারী জোসেফের ৮২ রানের সুবাদে অলআউট হওয়ার আগে ৪০৯ রান করে উইন্ডিজ। বাংলাদেশের হয়ে ৪টি করে উইকেট শিকার করেন তাইজুল ইসলাম ও আবু জায়েদ রাহি। মেহেদী মিরাজ ও সৌম্য সরকার ১টি করে উইকেট শিকার করেন।

 

নিজেদের প্রথম ইনিংসে ব্যাট করতে নেমে শুরু থেকেই দায়িত্বজ্ঞানহীনতার পরিচয় দেন ২য় টেস্টে হঠাৎ সুযোগ পাওয়া সৌম্য সরকার, সৌম্য চার বলে শুণ্যে ফেরেন। ওয়ানডে সিরিজ ও প্রথম টেস্টে ব্যর্থ হওয়া শান্তও আস্থার প্রতিদান দিতে পারেননি, লাগাতর ব্যর্থতা বজায় রেখেছেন ২ বলে ৪ রান করে ফেরে। তামিম ও মোমিনুল জুটি বেধে দলকে এগিয়ে নিলেও মোমিনুল ২১ ও তামিম ৪৪ রান করে ফিরলে ব্যাটিং বিপর্যয় বাড়ে টাইগারদের। মিথুন ও মুশফিক গতকাল শেষের সময়ে জুটি বেধে অপরাজিত থাকার পর আজ দারুণ শুরু করলেও ৮৬ বলে ১৫ রান করে ফেরেন মিথুন। মুশফিক দূর্দান্ত ব্যাট করে ফিফটি করলেও শেষে কান্ডজ্ঞানহীনের মতো অপ্রয়োজনীয় রিভারসুইপ শট খেলতে গিয়ে ক্যাচ দিয়ে ফেরেন ব্যক্তিগত ৫৪ রানে।

 

মাত্র ১৫৫ রানে ৬ উইকেট হারানোর পর ফলোঅনের শংকায় পরা টাইগারদের হয়ে লড়াই করেন লিটন ও দাশ ও মেহেদী মিরাজ। দুজনে ৭ম উইকেটে ১২৬ রানের জুটি গড়ে দলকে এগিয়ে নেন। ব্যক্তিগত ৭১ রানে লিটন ফেরার পর নাইম হাসান দ্রুত ফেরেন। মিরাজ ব্যক্তিগত ৫৭ রানে ফেরেন। শেষে রাহি ১ রানে ফেরেন। ২৯৬ রানে অলআউট হয় বাংলাদেশ। উইন্ডিজের হয়ে ৫ উইকেট শিকার করেন রাকিম কর্ণওয়াল। গাব্রিয়েল ৩ ও জোসেফ ২ উইকেট শিকার করেন।

 

১১৩ রানের লিড পাওয়া উইন্ডিজ নিজেদের ২য় ইনিংসে ব্যাট করতে নেমে গতকাল ৩য় দিনের শেষ বেলায় মাত্র ৪১ রানে ৩ উইকেট হারিয়ে চাপে পরার পর আজ ৪র্থ দিনের প্রথম সেশনে রাহি-তাইজুলের বোলিং তোপে পরে মাত্র ৭৩ রানে ৬ উইকেট হারিয়ে বিপাকে পরে। ৭ম উইকেটে বোনার ও জসুয়া ডি সিলভা ২৫ রানের জুটি গড়ে প্রথম সেশন শেষ করেন। ৬ উইকেট হারিয়ে উইন্ডিজের সংগ্রহ ৯৮ রান। লিড হয়েছে ২১১ রানের।

 

উইন্ডিজকে দ্রুত অলআউট করে লিড ২৫০ রানের মধ্যে রাখতে পারলে মিরপুর টেস্টে জয়ের সম্ভাবনা বাড়বে স্বাগতিক বাংলাদেশের। গলার কাটা হয়ে যাওয়া বোনার ও ডি সিলভার জুটি ভাঙ্গতেই ২য় সেশনে বল হাতে নামবে স্বাগতিকরা।

Like Us On Facebook

Facebook Pagelike Widget
error: Content is protected !!