একুশ তুমি

প্রকাশিত: ২:১৯ অপরাহ্ণ, ফেব্রুয়ারি ৯, ২০২১

একুশ তুমি

রমজান আলী:

একুশ তুমি ৫২’র সুতীব্র ভাষা আন্দোলন একুশ তুমি ভাষাশহীদদের রক্তে ভেজা রক্তিম রাস্তা,

একুশ তুমি পাকিস্তানীদের নির্মমভাবে ছোঁড়া গুলি একুশ তুমি দুঃখিনী মায়ের ছেলে ফিরে পাবার আস্থা।

 

একুশ তুমি ছাত্রজনতার নির্ভয়ে ভাঙ্গা ১৪৪ ধারা একুশ তুমি নিরন্তর ছুটে চলা অশোক-শোক মিছিল

একুশ তুমি অবরুদ্ধ মন জাগানোর অসীম স্পৃহা একুশ তোমায় পাবার তরে কত শব্দসেনা অকাতরে জীবন করলো লীন।

 

একুশ তুমি বীর বাঙালি মুক্তিসেনার অস্ত্র একুশ তুমি কাক ভোর জাগা প্রাণোচ্ছল পাখির সুগভীর গান

একুশ তুমি চির সবুজ ছাওয়া সুবিশাল রুপসী বাংলা একুশ তুমি ৭১’র মুক্তিযোদ্ধার বিজয়ী মেশিনগান।

 

একুশ তুমি নতুন প্রজন্মের নিত্যনতুন সুনিপুন ভাবনা একুশ তুমি শূন্য পায়ে ধেয়ে চলা জনতা

একুশ তুমি কোটি জনতার প্রাণপ্রিয় অমৃত মাতৃভাষা একুশ তুমি ছেলেহারা নিঃস্ব-রিক্ত মায়ের হৃদয় শূন্যতা।

 

একুশ তুমি বিশ্ব সভায় সব মানুষের গর্ব একুশ তুমি বাংলা মাঠে সবুজ ভরা

ঘাস একুশ তুমি চিরচেতনায় কবিকূলের মসী-অস্ত্র একুশ তুমি ধরনী তলে অজস্র ফুল-চিন্তার চাষ।

 

একুশ তুমি থাকবে থাক চিরকাল হয়ে প্রেরণার বাতিঘর একুশ তুমি জগৎ-জুড়িয়া কোটি মানুষের স্বপ্নের সম্বল

একুশ তুমি ভাষাহীন মানুষের চিরচেনা সেই মদিরভাষা একুশ তুমি সালাম-বরকত,রফিক-শফিকের আত্নার সুশৃঙ্খল।

 

একুশ তুমি এত কথা এত গান ভাবনার অন্ত নেই একুশ তুমি অজানা রাজ্যে আচমকা জেগে উঠা উচ্ছ্বাস

একুশ তুমি আমার অজস্র কবিতার বিরামহীন উৎস একুশ তুমি প্রতিটি বাঙ্গালির নিঃশ্বাস-প্রশ্বাস।

error: Content is protected !!