ভিহারী-অশ্বিন বীরত্বে সিডনি টেস্ট ড্র

প্রকাশিত: ১:২৮ অপরাহ্ণ, জানুয়ারি ১১, ২০২১

ভিহারী-অশ্বিন বীরত্বে সিডনি টেস্ট ড্র

জুবায়ের আহমেদ:

ক্রিকেটের আসল সৌন্দর্য্য টেস্ট, যুগ যুগ ধরে টেস্ট ক্রিকেট তার সৌন্দর্য্য ছড়িয়ে যাওয়ার ধারাবাহিকতা বজায় রেখেছে হালের টি২০ ও টি১০ ক্রিকেটের জনপ্রিয়তার মাঝেও। পাকিস্তান বনাম নিউজিল্যান্ড এর মধ্যকার সর্বশেষ টেস্ট সিরিজে লড়াই করে পাকিস্তান ম্যাচ ড্রয়ের কাছাকাছি গিয়ে পরাজয়বরণ করলেও আজ ভুল করেনি ভারত। ৪র্থ ইনিংসে ১৩১ ওভার ব্যাট করে সিডনি টেস্ট রাজকীয় ড্র করেছে।

 

সিডনি টেস্টে ৪০৭ রানের বিশাল লক্ষ্যে ব্যাট করতে নেমে পূজারা, প্যান্ট এবং সবশেষে হনুমা ভিহারী ও রবিচন্দ্র অশ্বিনের ব্যাটিং বীরত্বে ম্যাচ ড্র করেছে ভারত। ৬ষ্ঠ উইকেটে ভিহারী ও অশ্বিন ৪২.৪ ওভার ব্যাট করে ৬২ রানের জুটি গড়ে দলকে অবিশ্বাস্য ড্র এনে দিয়েছেন।

 

এর আগে ১-১ সমতায় থাকা সিরিজে এগিয়ে যাওয়ার লড়াইয়ে স্মিথের ১৩১ ও লাবুশেনের ৯১ রানের সুবাদে ৩৩৮ রান করে অস্ট্রেলিয়া। ভারতের হয়ে ৪ উইকেট শিকার করেন জাদেজা। জবাবে গিলের ৫০, পূজারার ৫০, প্যান্টের ৩৬ ও জাদেজার ২৮ রানের সুবাদে ২৪৪ রান করে ভারত। অজি পেসার কামিন্স ৪ উইকেট শিকার করেন।

 

৯৪ রানে এগিয়ে থেকে ২য় ইনিংসে ব্যাট করতে নেমে লাবুশেনের ৭৩, স্মিথের ৮১ ও গ্রীণের ৮৪ রানের সুবাদে ৬ উইকেট হারিয়ে ৩১২ রান করে অজিরা ইনিংস ঘোষণা করলে ভারতের সামনে লক্ষ্য দাঁড়ায় ৪০৭ রানের।

 

বিশাল লক্ষ্যে ব্যাট করতে নেমে গতকাল ৪র্থ দিনে ২ উইকেট হারিয়ে ৯৮ রান সংগ্রহ নিয়ে আজ ৫ম ও শেষ দিনে শুরুতেই অধিনায়ক রানাহ্যের উইকেট হারালেও প্যান্ট ও পূজারা দলকে জয়ের দিকে নিয়ে যান। দলকে জয়ের ভীত গড়ে দেওয়া প্যান্ট ৯৭ রান করে শতক বঞ্চিত হন। শতকের দিকে এগুতে থাকা পূজারাও ৭৭ রান করে ফেরেন। ২৭২ রানে ৫ উইকেট পতনের পর ৬ষ্ঠ উইকেটে ভিহারী ও অশ্বিন ৪২.৪ ওভার ব্যাট করে ৬২ রানের জুটি গড়ে দলকে অবিশ্বাস্য ড্র এনে দিয়েছেন। ভিহারী ১০০ বলে মাত্র ৬ রান করার পর ১৬১ বলে ২৩ ও অশ্বিন ১২৮ বলে ৩৯ রান করে অপরাজিত থেকে ড্র করে মাঠ ছাড়েন।

 

রিসভ প্যান্ট ও পূজারাকে ফিরিয়ে জয়ের সম্ভাবনা তৈরী করলেও আজ ভারতীয় ক্রিকেটের দ্যা ওয়াল হিসেবে খ্যাত রাহুল দ্রাবিড়ের জন্মদিনে হনুমা বিহারী ও অশ্বিন দেওয়াল গড়ে অজিদের জয় বঞ্চিত করে দলকে ড্র এনে দিয়েছেন।

 

সিডনি টেস্ট ড্র হওয়ার ফলে সিরিজের ৪র্থ ও শেষ ম্যাচটি তাই অঘোষিত ফাইনালে পরিণত হয়েছে। শেষ ম্যাচ জয়ী দলই সিরিজ জয়লাভ করবে। আর সে ম্যাচও ড্র হলে ১-১ সমতায় ড্র হবে সিরিজ।

 

 

Like Us On Facebook

Facebook Pagelike Widget
error: Content is protected !!