বিশ্বকাপজয়ী অধিনায়ক আকবর আলীর ক্রিকেট রেকর্ড

প্রকাশিত: ২:২৭ অপরাহ্ণ, নভেম্বর ১২, ২০২০

বিশ্বকাপজয়ী অধিনায়ক আকবর আলীর ক্রিকেট রেকর্ড

জুবায়ের আহমেদ:

যেকোন খেলাধূলা মিলিয়ে বাংলাদেশ দল বৈশ্বিক শিরোপা জিতেছে মাত্র ১টি। আর এই শিরোপা এনে দিয়েছেন উইকেটকিপার ব্যাটসম্যান আকবর আলীর নেতৃত্বাধীন বাংলাদেশ যুব দল। বিরুদ্ধ কন্ডিশন আফ্রিকার মাটিতে অনুষ্ঠিত হওয়া ২০২০ সালের অ-১৯ দলের বিশ্বকাপে আফ্রিকা-অস্ট্রেলিয়া-ইংল্যান্ডের মতো দলগুলোকে টপকে শক্তিশালী ভারতকে হারিয়ে শিরোপা জিতেছে বাংলাদেশ। দলকে প্রথমবারের মতো বৈশ্বিক শিরোপা এনে দেওয়া অধিনায়ক আকবর আলীকে “আকবর দ্যা গ্রেট” হিসেবেে আখ্যায়িত করা হয়েছে ইতিমধ্যে।

 

২০ বছর বয়সী আকবর আলী যুব দলের পাঠ চুকিয়ে এখন খেলছেন ঘরোয়া ক্রিকেটে। জাতীয় দলে জায়গা করে নেওয়ার স্বপ্নে লড়তে থাকা আকবর আলী আসন্ন বঙ্গবন্ধু কাপ ২০২০ এ বিক্সিমকো ঢাকায় জায়গা করে নিয়েছেন। ডি গ্রেড থেকে ৪ লাখ টাকায় দলভুক্ত করা হয় আকবর আলীকে। ঢাকায় আরো আছেন মুশফিকুর রহিম, নাসুম আহমেদ, রুবেল হোসেন, নাইম শেখ, ইয়াসির আলী রাব্বি, সাব্বির রহমান, মেহেদী হাসান রানা, মুক্তার আলী, তানজিদ হাসান, নাইম হাসান।

 

লিষ্ট এ-টি২০ ক্যারিয়ার-

২০১৯-২০ সালের ঢাকা প্রিমিয়ার লীগে ১৪টি লিষ্ট এ ম্যাচ খেলে ৫৬ রান বেস্টে ২ ফিফটিতে ৩২৬ রান করেছেন আকবর। সেই সাথে ১৫টি ক্যাচ ও ২টি ষ্ট্যাম্পিং করেছেন। ২০১৯ সালে ঢাকা প্রিমিয়ার লীগের টি২০ টুর্নামেন্টে ২টি টি২০ ম্যাচ খেলে ৪৩ রান বেস্টে মোট ৮৫ রান করেছেন। স্ট্রাইকরেটও ১৩২.৮১ দূর্দান্ত। এখনো প্রথম শ্রেণীর ক্রিকেটে অভিষেক হয়নি ২০ বছর চলা এই ক্রিকেটারের।

 

যুব ক্যারিয়ার-

এর আগে বাংলাদেশ অনুর্ধ ১৯ দলের হয়ে বিশ্বকাপজয়ের রেকর্ড সহ ২০১৮-২০ সাল পর্যন্ত ৩৬টি ওয়ানডে ম্যাচ খেলে অপরাজিত ৬৬ রান বেস্টে ৬ ফিফটিতে ৬৯৬ রান করেছেন। যাহা দেশের হয়ে যুব ওয়ানডেতে ১৩তম সর্বোচ্চ রান সংগ্রাহকের রেকর্ড। অধিনায়ক হিসেবে বিশ্বকাপ জয় সহ দেশের হয়ে ১৮তম ও সর্বশেষ অধিনায়ক হিসেবে ৩য় সবোচ্চ ২৮ ম্যাচে নেতৃত্ব দিয়ে ২১ ম্যাচ জয় পেয়েছেন।

১০ এর অধিক ম্যাচে নেতৃত্ব দেওয়া অধিনায়কদের মধ্যে আকবর আলীর জয়ের হার ৮২.৬৯ সবচেয়ে বেশি। মেহেদী মিরাজ সর্বোচ্চ ৪৮ ম্যাচে নেতৃত্ব দিয়ে ৩০ জয় পেয়েছিলেন। মাহমুদুল হাসান ৩৫ ম্যাচে নেতৃত্ব দিয়ে ২২ জয় পেয়েছিলেন।

 

উইকেটকিপার হিসেবে ৩৬ ম্যাচে দেশের হয়ে সর্বোচ্চ ৬৫টি ডিসমিসাল করেন। ২য় সর্বোচ্চ ৪১ ডিসমিসাল এনামুল হক বিজয়ের।

 

২০১৮-১৯ সাল পর্যন্ত ৪ যুব টেস্ট ম্যাচে খেলেছেন আকবর আলী। সেখানে ৯০ রান বেস্টে ২ ফিফটিতে ২৪৪ রান করেছেন, যা দেশের হয়ে ৭ম সর্বোচ্চ রান সংগ্রহের রেকর্ড। ২০১৯ সালে দলকে ২ ম্যাচে নেতৃত্ব দিয়ে ২টিতেই জয় পেয়েছেন।  অধিনায়ক হিসেবে একমাত্র বাংলাদেশী হিসেবে শতভাগ জয় ও সর্বোচ্চ ২টি জয়ও পেয়েছেন আকবর আলী।

 

উইকেটকিপার হিসেবে ৪ ম্যাচে সর্বোচ্চ ১৪টি ডিসমিসাল আকবর আলীর। ৫ ম্যাচে ১৪টি ডিসমিসাল এনামুল হক বিজয়ের।

 

বাংলাদেশ অনুধ্র্ব ১৯ দলের হয়ে সফল ক্যারিয়ার রেখে আসা আকবর আলী প্রতিযোগিতামূলক ক্রিকেটে দূর্দান্ত পারফর্ম করে জাতীয় দলে জায়গা করে নিয়ে সেখানেও নিজেতের প্রতিভা ও সামর্থে্যর জানান দিয়ে দেশকে সফলতা এনে দেবেন, এমনটাই প্রত্যাশা।

Like Us On Facebook

Facebook Pagelike Widget
error: Content is protected !!